‘মেয়েদের জন্য নিরাপদ বিদ্যালয় ক্যাম্পেইন’: শিক্ষার্থীদের মাঝে বাড়ছে যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য সচেতনতা

কিশোর-কিশোরীদের যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য শিক্ষা ও অধিকার নিয়ে কাজ করছে ‘দি হাঙ্গার প্রজেক্ট’। এই সংস্থার উদ্যোগে রাজশাহী বিভাগের ৭০টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং মাদরাসায় ‘মেয়েদের জন্য নিরাপদ বিদ্যালয়’ বিষয়ক কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। এই কার্যক্রমের উদ্দেশ্য হলো কিশোর-কিশোরীদের যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য অধিকার সম্পর্কে সচেতন করে তোলা ও যৌন  ও প্রজনন স্বাস্থ্য সম্পর্কিত সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে তাদের সহায়তা করা, যৌন নিপীড়ন হতে নিরাপদ রাখা, অপ্রত্যাশিত গর্ভপাত বন্ধ এবং নিরাপদ মাতৃত্ব নিশ্চিতকরণ এবং বিভিন্ন ধরনের সংক্রমণ হতে কিশোর-কিশোরীদের রক্ষা করা।

গত ২৪-২৫ এপ্রিল এবং ৯-১০ মে ২০১৮, নওগাঁ জেলার পত্নীতলার আলোহা প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে পত্নীতলা এবং মহাদেবপুর উপজেলার ৩৮টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও মাদরাসার সহকারী শিক্ষক এবং দি হাঙ্গার প্রজেক্ট-এর ইউনিয়ন সমন্বয়কারীদের নিয়ে কৈশোরকালীন যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য অধিকার বিষয়ক প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়। প্রশিক্ষণের মধ্য দিয়ে এখানকার প্রত্যেক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নিয়ে প্রশিক্ষণ আয়োজন করার পরিকল্পনা নেয়া হয়।

উক্ত পরিকল্পনার অংশ হিসেবে নিরমইল ইউনিয়নের হাটশাওলী-কানুপাড়া দাখিল মাদরাসা এবং পাটুল উচ্চ বিদ্যালয়, শিহাড়া ইউনিয়নের শিহাড়া উচ্চ বিদ্যালয় এবং হলাকান্দর দাখিল মাদরাসায় ‘কৈশোরকালীন যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য অধিকার’ বিষয়ক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়। প্রশিক্ষণের পর থেকে শিক্ষার্থীরা বিদ্যালয়গুলোতে মেয়েদের জন্য স্যানিটারি ন্যাপকিন, টয়লেটে পর্যাপ্ত পানি, সাবান, তোয়ালে ও ময়লা ফেলার ঝুঁড়ি নিশ্চিত করেছে। বিদ্যালয়ে মেয়েদের কমনরুম, শ্রেণিকক্ষ এবং খেলার মাঠের গুণগত মানোন্নয়নে শিক্ষকদের সাথে সমন্বয় সাধন করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে ইউনিয়ন পরিষদকে সম্পৃক্তকরণের মাধ্যমে বিদ্যালয়ের মাঠ সংস্কারের উদ্যোগ গৃহীত হয়েছে। নিরমইল ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ এবং পত্নীতলা উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নিয়মিত এসব কার্যক্রম তত্ত্বাবধান ও পর্যবেক্ষণ করছেন। এভাবেই ‘দি হাঙ্গার প্রজেক্ট’-এর নিবিড় প্রচেষ্টায় এগিয়ে চলছে ‘মেয়েদের জন্য নিরাপদ বিদ্যালয় ক্যাম্পেইন’।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.