পিলজংগ ইউনিয়নে পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা প্রণয়ন বিষয়ক কর্মশালা

five year planস্থানীয় পর্যায়ে সার্বিক উন্নয়নের উদ্দেশ্যে এলাকার খাতভিত্তিক সমস্যা চিহ্নিতকরণ, চাহিদা নিরূপণ ও সমস্যা সমাধানের নিমিত্তে উন্নয়ন পরিকল্পনা প্রণয়ন এবং পরিকল্পনা অনুযায়ী কার্যক্রম পরিচালনা এবং জনগণের মালিকানা সৃষ্টি করার লক্ষ্যে ইউনিয়ন পরিষদের পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা প্রণয়ন আবশ্যক।

অন্যভাবে বলতে গেলে, বাংলাদেশের গ্রামীণ জনগোষ্ঠীর কল্যাণে ইউনিয়ন পরিষদ হচ্ছে সবচেয়ে কাছের সরকার, যার মাধ্যমে রাষ্ট্রের সকল সেবা ও সহায়তা সরাসরি গ্রামীণ জনগোষ্ঠীর কাছে পৌঁছায়। এ সকল সেবা ও সম্পদের দক্ষ ও কার্যকর ব্যবহার এবং জনকল্যাণমূলক কর্মকাণ্ড পরিচালনার জন্য প্রয়োজন ইউনিয়ন পরিষদের দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা প্রণয়ন।

জনঅংশগ্রহণে সমন্বয় কমিটির মাধ্যমে পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা প্রণয়নের লক্ষ্যে বাগেরহাটের ফকিরহাট উপজেলার পিলজংগ ইউনিয়নে অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা প্রণয়ন বিষয়ক এক কর্মশালা। ২৩ মার্চ ২০১৫ ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তনে এ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খান শামীম জামান পলাশ। প্রধান অতিথি ছিলেন বেতাগা (ফকিরহাট, বাগেরহাট) ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান স্বপন দাশ। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা রুহুল কুদ্দুস তালুকদার, ইউপি সদস্য ও ইউনিয়নে কর্মরত বিভিন্ন পর্যায়ের সরকারি ও বেসরকারি কর্মকর্তাবৃন্দ। কর্মশালাটি পরিচালনা করেন দি হাঙ্গার প্রজেক্ট-বাংলাদেশ-এর সিনিয়র প্রোগ্রাম অফিসার ড. ভবসিন্ধু রায় এবং প্রোগ্রাম অফিসার সুখময় পাল।

কর্মশালার মধ্য দিয়ে অংশগ্রহণকারীদেরকে মূলত ইউনিয়ন পরিষদের পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা বিষয়ে উদ্বুদ্ধ করা হয়। এছাড়া কোন কোন পর্যায়ে কী করতে হবে, কীভাবে ওয়ার্ডসভার মধ্য দিয়ে প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো যোগাড় করা হবে সে বিষয়েও সম্যক ধারণা দেয়া হয়। কর্মশালার শেষভাগে পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা সমন্বয় কমিটি (পিসিসি) গঠন করা হয়, যারা এ কাজটিকে এগিয়ে নেবেন।