এ্যাকটিভ সিটিজেনস এচিভার্স সামিট-২০১৪ অনুষ্ঠিত

_DSC0117

‘বিশ্বব্যাপী সংযুক্ত এবং স্থানীয়ভাবে সম্পৃক্ত’ এই শ্লোগানকে ধারণ করে ২৯ মার্চ, ২০১৪ সফলভাবে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল এ্যাকটিভ সিটিজেনস এচিভার্স সামিট-২০১৪। এ দিন বাংলা একাডেমী চত্বর পরিণত হয়েছিল মিলনমেলায়, যেখানে সমবেত হয়েছিল সারাদেশ থেকে আগত ১৮-২৫ বছরের প্রায় পাঁচশত সফল তরুণ। সামিটে ২০টি সামাজিক উদ্যোগ প্রদর্শন করা হয়, যার মধ্যে দি হাঙ্গার প্রজেক্ট-এর সামাজিক উদ্যোগ ছিল দশটি। অনুষ্ঠানে তিনটি সেরা সামাজিক উদ্যোগের মধ্যে দি হাঙ্গার প্রজেক্ট দু’টি সেরা উদ্যোগের সম্মাননা লাভ করে। এর মধ্যে একটি পরিবেশ সুরক্ষায় তারুণ্য (সুনামগঞ্জ) এবং অন্যটি ইংরেজী ভাষা শিক্ষণ ক্লাব (রাজশাহী সিটি)। এছাড়াও দু জন ইয়ূথ লিডার সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে কার্যক্রম ও সফলতা তুলে ধরার স্বীকৃতিস্বরুপ বিশেষ পুরস্কার লাভ করেন।

গত পাঁচ বছর এই কর্মসূচির সাথে স¤পৃক্ত তরুণ-তরুণীদের সাফল্যগাঁথা তুলে ধরাই ছিল সামিটের মূল উদ্দেশ্য। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গণ-প্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ এমপি। বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন ব্রিটিশ হাই কমিশনার রবার্ট ডব্লিউ গিবসন, ব্রিটিশ কাউন্সিল-এর কান্ট্রি ডিরেক্টর (ভারপ্রাপ্ত) ব্র্যান্ডেন ম্যাকশারি ও দি হাঙ্গার প্রজেক্ট-এর কান্ট্রি ডিরেক্টর ও গ্লোবাল ভাইস প্রেসিডেন্ট ড. বদিউল আলম মজুমদার। এছাড়াও দেশ-বিদেশের বেশ কয়েকজন বরেণ্য ব্যক্তি এতে অংশ নেন।
অনুষ্ঠানে তরুণদের সক্রিয় নাগরিক হওয়ার জন্য অনুপ্রেরণা, নেতৃত্বের বিকাশ ও সাফল্যের স্বপ্ন দেখানোর লক্ষ্যে প্রাণবন্ত আলোচনা করেন ড. বদিউল আলম মজুমদার। এরপর দেশের বাইরে বিভিন্ন কার্যত্রমে অংশ নেওয়া ইয়ূথ লিডারগণ তাদের শিক্ষণীয় নানান দিক, অর্জন ও সম্ভাবনাগুলো তুলে ধরেন। আলোচনার ফাঁকে ফাঁকে সকলের অংশগ্রহণে মনোমুগ্ধকর সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।
অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে ছিলো দুইটি প্যানেল আলোচনা। প্রথমটায় অংশ নেন ব্যারিস্টার মনজুর হাসান, ব্যারিস্টার সারা হোসেন ও ইউল্যাব-এর উপাচার্য অধ্যাপক ইমরান রহমান। দ্বিতীয় প্যানেল আলোচনায় অংশ নেন বাংলাদেশ ইয়ূথ লিডারশিপ সেন্টারের প্রেসিডেন্ট ইজাজ আহমেদ ও জাগো ফাউন্ডেশন-এর প্রতিষ্ঠাতা কার্ভি র‌্যাকসান্ড প্রমুখ। সামজিক উদ্যোগ সম্মাননা ও সমাপনী পর্বে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ব্রিটিশ কাউন্সিল-এর ডিরেক্টর (পার্টনারশিপ ও প্রোগ্রাম) রবিন ডেভিস, ব্রিটিশ কাউন্সিল-এর হেড অফ পার্টনারশিপ সৈয়দ মাসুদ হোসেন এবং বিশিষ্ট সঙ্গীতশিল্পী বাপ্পা মজুমদার।

প্রসঙ্গত, এই সামিটের পূর্বে রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল ও সিলেটে চারটি এ্যাকটিভ  সিটিজেনস রিজিওনাল এচিভার্স সামিট অনুষ্ঠিত হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.